ট্রেনে শিডিউল বিপর্যয়, চরম ভোগান্তিতে যাত্রীরা

0

সিটি নিউজ ডেস্ক :: ঈদের ঠিক আগের দিনে ট্রেনে শিডিউল বিপর্যয়ের ফাঁদে পড়েছে কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন। কোনো ট্রেনই ঠিক সময়ে ছাড়ছে না স্টেশন। স্টেশনে ভিড়ছেও দেরিতে। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন যাত্রীরা।

দিনের প্রথম ট্রেন ধূমকেতু সকাল ৬টায় ছাড়ার কথা থাকলেও সকাল সাড়ে ৮টার মধ্যেও কমলাপুরে এসে পৌঁছায়নি।

খুলনাগামী সুন্দরবন এক্সপ্রেস সকাল ৬টা ২০ মিনিটে স্টেশন ছাড়ার কথা থাকলেও সেটি ছাড়ে সকাল ৭টা ৪০মিনিটে।

তিস্তা সকাল সাড়ে ৭টায় স্টেশন ছাড়ার কথা থাকলেও তা ছেড়ে যায় ৮টা ১০ মিনিটে।

মহানগর প্রভাতী ৭টা ৪৫মিনিট ছাড়ার কথা থাকলেও ছাড়ে সকাল ৮টা ২৮মিনিটে।

মহুয়া এক্সপ্রেস সকাল ৮টা ১৫ মিনিটে ছাড়ার কথা থাকলেও সেটিও দেরি করে।

সকাল ৮টায় কমলাপুর স্টেশন ছাড়ার কথা নীলসাগর এক্সপ্রেসের তখন পর্যন্ত স্টেশনে পৌঁছায়নি।

নীলসাগর এক্সপ্রেসযোগে চিলাহাটি যাবেন শমী। তিনি বলেন, সকাল ৮টায় ট্রেন ছাড়ার কথা থাকলে এখনও ট্রেন কমলাপুরে আসেনি। কখন আসবে জানি না। টিকিট কাটতে ভোগান্তিতে পড়েছিলাম, এবার ট্রেনের অপেক্ষা।

কমলাপুরে যাত্রীদের অপেক্ষা শাহজান পারভীন দুই বছর বয়সী শিশুকে নিয়ে আজ গ্রামে যাওয়ার কথা ধুমকেতু ট্রেনযোগে। কিন্তু সকাল ৬টায় ছাড়ার কথা থাকলেও এখনও স্টেশনে আসেনি। শিশুটি একটু পর পর কান্না করছে।

মহানগর প্রভাতীর অ্যাটেন্ডেন্ট ফয়সাল বলেন, লাইন ক্লিয়ার না থাকায় আমাদের ছাড়তে দেরি হচ্ছে। লাইন ক্লিয়ার হলেই আমরা ট্রেন ছাড়বো।

মহানগর প্রভাতীর এক যাত্রী বলেন, শুনেছি ঈদযাত্রায় কোনো ট্রেনে শিডিউল বিপর্যয় নেই। আজ দেখে বোঝা যাচ্ছে ট্রেনের সার্ভিস। আমরা এক প্রকার বিপদে পড়েছি।

এ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Leave A Reply

Your email address will not be published.