সীতাকুণ্ডে ফার্নেস বিষ্ফোরণ ৫ শ্রমিক দগ্ধ

0

সিটি নিউজ, সীতাকুণ্ডঃঃ সীতাকুণ্ডে গোল্ডেন ইস্পাত লিমিটেড নামক একটি রি-রোলিং মিল এ ফার্নেস বিষ্ফোরণে ৫ শ্রমিক অগ্নিদ্বগ্ধ হয়েছে। এদের মধ্যে অবস্থা গুরুতর হওয়ায় ৩ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। অন্য দুই শ্রমিককে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

আজ বুধবার (৭ নভেম্বর) সকাল ৯ টার সময় উপজেলার কুমিরা ইউনিয়নের ডাল চাল মিয়া মাজার সংলগ্ন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, তাহের ব্রাদার্স লিমিটেডের মালিাকানাধীন গোল্ডেন ইস্পাত লিমিটেড নামক রি-রোলিং মিলসে হটাৎ বিকট শব্দে ফার্নেস বিষ্ফোরণ ঘটে। এতে ফার্নেসের আশপাশে কর্মরত ৫ শ্রমিক কমবেশি অগ্নিদ্বগ্ধ হন।

পরে তাদেরকে চমেক ও আল আমিন হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করানো হয়। আল-আমিন হাসপাতালের সুপার ভাইজার নাঈম শাওন ও কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ তুহিন জানান, ঘটনার পরপর গোল্ডেন ইস্পাত কর্তৃপক্ষ মোট ৪ জন অগ্নিদ্বগ্ধ শ্রমিককে তাদের হাসপাতালে নিয়ে আসে। কিন্তু দুই শ্রমিক বেশি দগ্ধ না হওয়ায় তাদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া মোঃ শামীম মিয়া (২৫) ও মিজানের (৩৬) নামক দুই শ্রমিকের শরীর ৫-১০ শতাংশ দগ্ধ হওয়ায় তাদেরকে হাসপাতালে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। ডাঃ তুহিন বলেন, তাদেরকে আরো পর্যবেক্ষনে রাখা প্রয়োজন। কয়েকদিন গেলে তারা কেমন আছে পুরোপুরি নিশ্চিত হওয়া যাবে। অন্যদিকে এ ঘটনায় গুরুতর আহত আরো এক শ্রমিককে চমেক হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে।

সোহাগ মিয়া (২৮) নামক ঐ শ্রমিকের শরীরের প্রায় ৪৫ শতাংশ দগ্ধ হয়েছে বলে চমেক ফাঁড়ির পুলিশ সদস্যরা জানিয়েছে। সোহাগ সন্দ্বীপের কাছিয়ার পাড় এলাকার শফিউদ্দিনের পুত্র। গোল্ডেন ইস্পাতের ব্যবস্থাপনা পরিচালক চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের সাবেক মেয়র আলহাজ মঞ্জুরুল আলম মঞ্জু ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ফার্নেসের মধ্য থেকে গরম পানি পড়ে উক্ত শ্রমিকরা কমবেশি দগ্ধ হয়েছে। এদের মধ্যে আল-আমিন হাসপাতালে দুইজন ও চমেকের বার্ণ ইউনিটে একজন ভর্তি আছে। তাদের সুচিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। ঘটনাস্থল পরিদর্শনকারী সীতাকুণ্ড থানার এস.আই মোঃ আমির হামজা বলেন, ফার্নেস বিষ্ফোরণে আহতদের অবস্থা খুব গুরুতর নয় বলে জানান তিনি।

এ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Leave A Reply

Your email address will not be published.