• Tuesday, August 21, 2018
logo
add image

সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্টের রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন

সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্টের রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন


শাহজাহান চৌধুরী শাহীন, কক্সবাজার :: সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট অ্যাঁলে বেরসে বলেছেন, সেচ্ছায় রোহিঙ্গারা যাতে মর্যাদা ও সম্মানের সাথে নিরাপদে নিজ দেশে ফিরে যেতে পারে সে লক্ষ্যে কাজ করবে সুইজারল্যান্ড।

তিনি মঙ্গলবার কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন শেষে এক প্রেসব্রিফিং এ কথা বলেন। এসময় তিনি কফি আনান কমিশনের দেয়া রিপোর্ট বাস্তবায়নের দাবি জানান। 

রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিয়ে যেতে বাধ্য করতে মিয়ানমারের উপর চাপ প্রয়োগ করবেন কিনা সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন- মিয়ানমার ও বাংলাদেশের মধ্যে সম্পাদিত প্রত্যাবাসন চুক্তি বাস্তবায়নে কাজ করবে তার দেশ।

বাংলাদেশের সাথে ৪৫ বছরের কূটনৈতিক সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, রোহিঙ্গা সংকটে বাংলাদেশের পাশে থাকবে সুইজারল্যান্ড।

মিয়ানমারের রাখাইন থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের অবস্থা দেখতে সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট অ্যাঁলা বেরসে বিশেষ বিমানে করে আজ বেলা ১১টা ১৫ মিনিটে কক্সবাজার বিমান বন্দরে পৌছেন। এরপর তিনি  কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে সুইজারল্যান্ড সরকারের পক্ষ থেকে বিভিন্ন চিকিৎসার সরঞ্জাম হস্তান্তর করেন।

পরে তিনি হাসপাতালে চিকিৎসার সর্ম্পকে কর্তব্যরত ডাক্তারদের কথা শুনেন এবং চিকিৎসাধীন রোহিঙ্গদের  ওর্য়াড ঘুরে দেখেন। পরিদর্শন শেষে দুপুরে কুতুপালং রোহিঙ্গা  ক্যাম্পের  আইওএম হাসপাতাল পরিদর্শন করেন এবং ইউনিসেফ পরিচালিত স্থাপিত শিশু বান্ধব কেন্দ্র  পরিদর্শন করেন। পরে রোহিঙ্গাদের ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম প্রত্যক্ষ করেন।

এসময়  তিনি মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের সাথে কথা বলেন। পরিদশৃনকালে পররাষ্ট্র মন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী,সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নুর, জেনেভায় বাংলাদেদেশের রাষ্ট্রদূত এম শামিম আহসান,সুইজারল্যান্ডের রাষ্ট্রদূত হোলেস্টাইনসহ পদস্থ কর্মকর্তারা উপস্তিত ছিলেন।

এসময় সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি রোহিঙ্গাদের মানবিক সহায়তা প্রদানের জন্যে বাংলাদেশের সরকার ও জনগনের প্রতি আন্তরিক ধন্যবাদ জানান।